English ছবি ভিডিও
Bangla Font Problem?
শেষ আপডেট ৫:২৩ পূর্বাহ্ণ
ঢাকা, রবিবার , ২২শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং , ৭ই আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

ফিরে দেখা বাংলাদেশের বিশ্বকাপ যাত্রা

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

২৩ জুন ২০১৯: বাংলাদেশের ক্রীড়ামোদী, ক্রীড়াসংগঠক এবং খেলোয়ারদের উৎসাহে গড়ে ওঠা ক্রিকেট পরিমন্ডলের সাফল্যের প্রাথমিক স্বীকৃতি হিসাবে ১৯৭৭ সালে প্রথম বারের মত বিশ্ব ক্রিকেট সংস্থা-র সহযোগী সদস্যপদ লাভ করে । তৎকালীন বাংলাদেশ ক্রিকেট সংস্থার প্রচেষ্টায় ক্রমে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল আন্তর্জাতিক স্তরে খেলার যোগ্যতা অর্জন করে । দুই দিন , তিন দিন ও চার দিনের খেলার স্তর পার হয়ে অনেক লম্বা পথ পাড়ি দিয়ে ১৯৯৭ সালে বাংলাদেশ আই সি সি চ্যাম্পিয়নশীপ এ বিজয়ী হবার মধ্য দিয়ে বিশ্ব ক্রিকেটের বৃহত্তম আসর “আই সি সি বিশ্বকাপ ক্রিকেট ১৯৯৯” এ খেলবার সুযোগ পায় । কিন্তু কেমন ছিলো বাংলাদেশের প্রথম বিশ্বকাপ। আসুন জেনে আসি টাইগারদের প্রথম বিশ্বকাপ যাত্রার আদ্যোপান্ত।

বাংলাদেশ ১৯৯৯ বিশ্বকাপে প্রথমবারের মতো অংশগ্রহণ করে হতাশ করেনি। বিশ্বকাপের বড় মঞ্চে মাঠে নেমে প্রথম জয় পেতে টাইগারদের অপেক্ষা করতে হয়েছিল নিজেদের তৃতীয় ম্যাচ পর্যন্ত। প্রথম দুটি ম্যাচে নিউজিল্যান্ড ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের সঙ্গে খুব একটা পাত্তা পায়নি তারা। আজ থেকে ঠিক ১৯ বছর আগে নিজেদের তৃতীয় ম্যাচে স্কটল্যান্ডকে ২২ রানে হারিয়ে ক্রিকেটের বিশ্ব মঞ্চে প্রথম জয় পেয়েছিল আমিনুল ইসলাম বুলবুলের দল। আগে ব্যাটিং করে মিনহাজুল আবেদীনের অপরাজিত ৬৮ রানে ৫০ ওভারে ৯ উইকেটে ১৮৫ রান তোলে বাংলাদেশ। অথচ নান্নু বিশ্বকাপের দলেই ছিলেন না।

দেশের ক্রিকেট প্রেমীদের প্রবল প্রতিরোধের মুখেই সুযোগ পেয়েছিলেন তিনি। স্কটিশদের ১৬৩ রানে গুটিয়ে দিয়ে ২২ রানের জয় পায় বাংলাদেশ। বাংলাদেশ পায় বিশ্বকাপের প্রথম জয়। দ্বিতীয় জয়টি তো অবিশ্বাস্য। গ্রুপ পর্বে তখন চলছিল ফেভারিট পাকিস্তানের দাপট। একের পর এক জয় তুলে নেওয়া শক্তিশালী পাকিস্তানকেই কিনা হারিয়ে দেয় বাংলাদেশ।

আগে ব্যাট করে আকরাম খানের ৪২, শাহরিয়ার হোসেন বিদ্যুতের ৩৯ ও খালেদ মাহমুদ সুজনের ২৭ রানে ভর করে ৯ উইকেট ২২৩ রান তোলে বাংলাদেশ। স্বল্প পুঁজি নিয়ে টাইগারদের দারুণ সূচনা এনে দেন সুজন। ১০ ওভারে ৩১ রান দিয়ে তিন উইকেট নিয়ে ম্যাচসেরা সুজনের কাঁধে চড়েই ঐতিহাসিক জয়টি পায় বাংলাদেশ। পাকিস্তানকে বেঁধে ফেলে ১৬১ রানে। ৬২ রানের সেই জয়টি খুলে যায় নতুন দিগন্ত। তারপরের গল্প শুধুই অর্জনের। তাই প্রথম বিশ্বকাপ বাংলাদেশের কোটি ক্রিকেট প্রেমীদের স্মৃতিতে আজো অমলিন।


জনপ্রিয় বিষয় সমূহ: