Tuesday, 19 Jun 2018
সর্বশেষ খবর
 

পদত্যাগ করলেন ইউনুস



পদত্যাগ করলেন ইউনুস

০৪ এপ্রিল ২০১৬: প্রথমে এশিয়া কাপ, তারপর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। টানা দুই টুর্নামেন্টেই ব্যর্থ পাকিস্তান। এই ব্যর্থতা মাথায় নিয়েই পাকিস্তানের কোচের পদ থেকে সরে দাঁড়ালেন ওয়াকার ইউনুস।

পাকিস্তানের কিংবদন্তি পেসার যে চাকরি হারাচ্ছেন, বেশ কিছুদিন ধরেই গুঞ্জনটা শোনা যাচ্ছিল দেশটির ক্রীড়াঙ্গনে। আগামী জুলাইয়ে ইংল্যান্ড সফরের আগেই যে তাঁকে সরিয়ে দেওয়া হবে, তার আভাস পাওয়া যাচ্ছিল ভালোভাবেই। ওয়াকারের চুক্তির মেয়াদ অবশ্য আরো তিন মাস ছিল। কিন্তু অতদিন অপেক্ষা করতে চাননি। লাহোরে সাংবাদিকদের তিনি জানিয়েছেন, আজ দুঃখভারাক্রান্ত মনে আমি পদত্যাগের কথা জানাচ্ছি।

বেশ কিছুদিন ধরেই দলের সঙ্গে সম্পর্ক ভালো যাচ্ছিল না ওয়াকারের। টানা তিন ম্যাচ হেরে বিশ্বকাপ থেকে বিদায়ের পর দল নিয়ে পাকিস্তানের গণমাধ্যমের সামনে ক্ষোভ প্রকাশও করেছিলেন তিনি। সবচেয়ে বেশি সমালোচনা করেছিলেন অধিনায়ক শহীদ আফ্রিদির। নব্বইয়ের দশকে ওয়াসিম আকরামের সঙ্গে দুর্ধর্ষ পেস-জুটি গড়ে তোলা ওয়াকার বলেছিলেন, দুর্বল অধিনায়কত্বের জন্য নিউজিল্যান্ড সফর, এশিয়া কাপ আর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ব্যর্থ হয়েছি আমরা। আমি অনেকবার বলেছি যে শহীদ আফ্রিদি ব্যাটসম্যান, বোলার বা অধিনায়ক কোনো ভূমিকাতেই পারফর্ম করতে পারছে না। কিন্তু আমার কথা কেউ শোনেনি।

সেই ক্ষোভ থেকেই হয়তো সরিয়ে দেওয়ার আগে নিজেই সরে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন ওয়াকার। যদিও তাঁকে সম্পূর্ণ ব্যর্থ কোচ বলা যাবে না। ২০১৪ সালে দ্বিতীয় দফা কোচের দায়িত্ব নেওয়ার পর তাঁর অধীনে টেস্টে বেশ কিছু উল্লেখযোগ্য সাফল্য পেয়েছে পাকিস্তান। কোচ ওয়াকার আর টেস্ট অধিনায়ক মিসবাহ-উল-হক মিলে গত বছরের শেষ দিকে টেস্ট র‍্যাংকিংয়ে দ্বিতীয় স্থানে নিয়ে যান দলকে। যদিও ওয়ানডে আর টি-টোয়েন্টিতে তেমন সাফল্য পাননি। যার জের ধরে পাকিস্তানের কোচের দায়িত্ব ছেড়েই দিতে হলো সাবেক গতিতারকাকে।


সর্বশেষ খবর