English ছবি ভিডিও
Bangla Font Problem?
শেষ আপডেট ৫:১৩ পূর্বাহ্ণ
ঢাকা, শনিবার , ২৮শে মার্চ, ২০২০ ইং , ১৪ই চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

মাস্ক ব্যবহারে ডব্লিউএইচও’র নির্দেশনা

Facebooktwitterredditpinterestlinkedinmail
বার্তা16 অনলাইন মার্চ ২১, ২০২০

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে যে কথাটি সবচেয়ে বেশি বলা হচ্ছে তা হলো মাস্ক ব্যবহার। বিশ্বের বিভিন্ন স্থানে করেনা ছড়িয়ে পড়ার পর মোটামুটি সব অঞ্চলের মানুষই এ বিষয়ে সচেতন হয়েছেন। ফলে বিভিন্ন স্থানে দেখা দিয়েছে মাস্কের সংকট। আগের চেয়ে দামও হাকা হচ্ছে বেশি। তবে মাস্ক ব্যবহারের ক্ষেত্রে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) নির্দেশনা মেনে চলাই ভালো। চলুন তাহলে জেনে নেই নির্দেশনাগুলো।

কখন ও কেন মাস্ক ব্যবহার করবেন

নিজে সুস্থ থাকলে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন বা সন্দেহ করা হচ্ছে—এমন ব্যক্তির শুশ্রূষা করার সময়ই শুধু আপনার মাস্ক পরার প্রয়োজন রয়েছে।

হাঁচি বা কাশি থাকলে মাস্ক ব্যবহার করুন, যেন আপনার শরীরে করোনাভাইরাস থাকলে তা অন্যদের মধ্যে না ছড়ায়।

মাস্ক ব্যবহার তখনই কার্যকর, যখন আপনি অ্যালকোহলভিত্তিক হ্যান্ড রাব (বাজারে থাকা সাধারণ হেক্সিসল বা অনুরূপ পণ্য) বা সাবান-পানি দিয়ে ঘন ঘন হাত পরিষ্কার করেন।

মাস্ক ব্যবহার করতে হলে এর ব্যবহারবিধি জেনেই করা উচিত।

কীভাবে ব্যবহার করবেন

মাস্ক পরার আগে হাত (সাবান-পানি দিয়ে অন্তত ২০ সেকেন্ড বা হ্যান্ড রাব দিয়ে) পরিষ্কার করে নিন।

মাস্ক পরার সময় এর সামনের অংশ ধরবেন না।

নাক ও মুখ মাস্ক দিয়ে ঢেকে ফেলুন এবং মনে রাখবেন, মুখ ও মাস্কের মধ্যে যেন কোনো ফাঁকা স্থান না থাকে।

ব্যবহারের সময় মাস্ক স্পর্শ করা থেকে বিরত থাকুন। আর যদি স্পর্শ করেন, তবে সাবান-পানি দিয়ে অন্তত ২০ সেকেন্ড ধরে হাত ধুয়ে নিন।

ব্যবহৃত মাস্কটি ভেজা বা স্যাঁতসেঁতে মনে হওয়ামাত্রই তা বদলে ফেলুন। ডিসপোজিবল বা একবার ব্যবহারের জন্য তৈরি মাস্ক বারবার ব্যবহার করবেন না।

মাস্ক অপসারণের সময় এর সামনের অংশ স্পর্শ করবেন না। মাস্ক খুলে ফেলার সঙ্গে সঙ্গে তা ঢাকনা দেওয়া ময়লার বাক্সে ফেলুন।

মাস্ক খোলার পর হাত পরিষ্কার করে নিন।

এমএ/


জনপ্রিয় বিষয় সমূহ: